January 25, 2022
27 °C Dhaka, Bangladesh

টেকনো ক্যামন ১৭ সিরিজ এখন দেশের সকল আউটলেটে পাওয়া যাচ্ছে

ডেস্ক রিপোর্টঃ

অনলাইন মার্কেটে চমৎকার সাফল্য অর্জন করেছে প্রিমিয়াম স্মার্টফোন ব্র্যান্ড টেকনো’র ক্যামন ১৭ সিরিজ। তারই ধারাবাহিকতায় গ্রাহক চাহিদা পূরণে এখন দেশজুড়ে পাওয়া যাচ্ছে জনপ্রিয় এই স্মার্টফোনটি।

টেকনো ক্যামন ১৭পি-তে আছে এফএইচডি ৬.৮ ইঞ্চি ডট-নচ স্ক্রিন এবং সাইড ফিঙ্গারপ্রিন্ট। ডিভাইসটিতে রয়েছে ৬৪ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা পাশাপাশি এআই নাইট-মোড সহ একটি ম্যাক্রো, বোকেহ এবং কিউভিজিএ লেন্সযুক্ত ক্যামেরা ও দুটি ফ্রন্ট ফ্ল্যাশলাইটও রয়েছে ক্যামন ১৭পি ফোনটিতে। এছাড়া স্মুথ এক্সপেরিএন্স এর জন্য ফোনের হাইওএস ৭.৬ ভিত্তিক অ্যান্ড্রয়েড ১১ অপারেটিং সিস্টেম এবং ৬০ হার্জ রিফ্রেশ রেটের ডিসপ্লে। অন্যদিকে, টেকনো ক্যামন ১৭-তে রয়েছে এআই লেন্স সহ ৪৮ মেগাপিক্সেল ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা, ৯০ হার্জ রিফ্রেশ রেট সম্পন্ন এইচডি প্লাস ৬.৬ ডট-ইন ডিসপ্লে ।

ক্যামন ১৬ সিরিজ-এর সাফল্যের ধারাবাহিকতায় ২০২০ সালে বাজারে আসে ক্যামন ১৭ সিরিজ। নতুন সিরিজে ডিসপ্লে, প্রসেসর, ক্যামেরা সহ বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন আনা হয়েছে। দুটি মডেলেই উল্লেখযোগ্য আপগ্রেড হিসেবে থাকছে হেলিও জি৮৫ প্রসেসর এর ব্যবহার। দুটি ফোনেই থাকছে ৬ গিগাবাইট (জিবি) র‍্যাম এবং ১২৮ রম (যা ২৫৬ জিবি পর্যন্ত বর্ধনশীল)। এছাড়া ফোনের দীর্ঘ ব্যবহার এবং দ্রুত চার্জ নিশ্চিত করতে ১৮ ওয়্যাট-এর ফাস্ট চার্জ প্রযুক্তিসম্পন্ন ফোনটিতে রয়েছে ৫০০০ এমএএইচ-এর ব্যাটারি।

ট্রানশান বাংলাদেশ লিমিটেড-এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা রেজওয়ানুল হক বলেন, “ক্যামন ১৭ সিরিজ ইতোমধ্যেই গ্রাহকদের থেকে ব্যাপক সাড়া এবং গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে। আমাদের ব্যবসায়িক কার্যক্রমের সকল ক্ষেত্রেই গ্রাহকদের প্রাধান্য দিয়ে থাকি আর এই গ্রাহক চাহিদার কথা বিবেচনা করেই আমরা সবসময় চেষ্টা করি সর্বাধুনিক প্রযুক্তিসম্পন্ন সেরা পণ্যটি গ্রাহকদের হাতে পৌঁছে দিতে। দেশজুড়ে সকল ব্র্যান্ড ও রিটেইল আউটলেটে ক্যামন ১৭ সিরিজ বিক্রয়ের সিন্ধান্ত সেই প্রতিশ্রুতিরই বহিঃপ্রকাশ। পাশাপাশি দেশজুড়ে সকলের কাছে টেকনো স্মার্টফোন পৌঁছে দিতে আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।”

ক্যামন ১৭পি মাত্র ১৮,৯৯০ টাকায় ফ্রস্ট সিলভার এবং স্প্রুচ গ্রিন কালারে, এছাড়া ক্যামন ১৭ মাত্র ১৬,৯৯০ টাকায় ফ্রস্ট সিলভার ও ডিপ সি কালারে পাওয়া যাবে।

টেকনো সম্পর্কে –
টেকনো মোবাইল ট্রানশান হোল্ডিংস-এর একটি প্রিমিয়াম মোবাইল ব্র্যান্ড, যাদের পোর্টফোলিও জুড়ে রয়েছে ফোন, স্মার্টফোন, ট্যাবলেট ইত্যাদি। ব্র্যান্ড হিসেবে টেকনো অত্যাধুনিক প্রযুক্তিগুলোকে স্থানীয় পণ্যে রূপান্তরিত করতে কাজ করে যাচ্ছে এবং তাদের মূলমন্ত্র হলো- “থিংক গ্লোবালী, অ্যাক্ট লোকালী”।

২০০৬ সালে যাত্রা শুরু করা টেকনোর উপস্থিতি রয়েছে বিশ্বের ৬০ টিরও বেশি দেশে। বর্তমানে তারা আফ্রিকার সেরা ৩ টি মোবাইল ফোন ব্র্যান্ডের ১ টি এবং তাদের ক্ষ্যাতি রয়েছে বিশ্বজুড়েও। এছাড়াও, টেকনো বিখ্যাত ফুটবল ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটি’র অফিশিয়াল ট্যাবলেট ও হ্যান্ডসেট পার্টনার।

শেয়ার করুন, সচেনতা বাড়ান:
Previous Article

টাঙ্গাইলের মধুপুরে জাতীয় কন্যা শিশু দিবস পালিত

Next Article

নাসির-তামিমাসহ তিনজনকে আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ

You might be interested in …

পাবনায় নতুন জেলা প্রশাসক হিসেবে নিয়োগ পেলেন, বিশ্বাস রাসেল হোসেন

খোন্দকার সজিব আহমেদ,পাবনা প্রতিনিধিঃ পাবনা জেলা প্রশাসক কবীর মাহমুদকে বদলী করা হয়েছে। সোমবার (৩১ মে) রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের উপসচিব এবিএম ইফতেখারুল ইসলাম খন্দকার স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী পাবনার জেলা […]

সিরাজগঞ্জের সলঙ্গায় র‌্যাবের অভিযানে ফেন্সিডিল ও ইয়াবা ট্যাবলেট সহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

সোমবার(২৮ ডিসেম্বর ২০২০ খ্রীঃ) দুপুর ০১.৩৫ ঘটিকায় গোপন সাংবাদের ভিত্তিতে অত্র ব্যাটালিয়নের এ্যাডজুটেন্ট Ges অপ্স অফিসার সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমার সরকার এর নেতৃত্বে র‌্যাব-১২ এর স্পেশাল কোম্পানীর একটি চৌকষ আভিযানিক দল সিরাজগঞ্জ জেলার সলঙ্গা থানাধীন দৌলতপুর গ্রামস্থ মাছের আড়ত সংলগ্ন রাকিব হোটেল এন্ড রেষ্টুরেন্টের সামনে পাঁকা রাস্তার উপর অস্থায়ী চেকপোস্ট বসিয়ে মোটরসাইকেল তল্লাশী চালিয়ে ৬৮ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট ও ০২ বোতল ফেন্সিডিল সহ ০২ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়। এছাড়া ও তাহার নিকট থেকে মাদক ক্রয়-বিক্রয়ের কাজে ব্যবহৃত ০২ টি মোবাইল, নগদ ৮,১০০/- টাকা ও ০১ টি মোটরসাইকেল জব্দ করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামী ১। মোŦ শামীম হোসেন সমেন(৩৭),পিতা- মৃত খোকন, সাং-মলিপাটি পশ্চিমপাড়া, ২। মোঃ তারেক আজিজ রকি(২৭),পিতা- মোহাম¥দ আলী,সাং-কানাইখালী,উভরেয় থানা ও জেলা-নাটোর। গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে সিরাজগঞ্জ জেলার সলঙ্গা থানায় ২০১৮ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ৩৬ এর ১০(ক),৩৬ এর ১৩(ক) ধারায় মামলা দায়ের করত উদ্ধারকৃত আলামতসহ তাকে উক্ত থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ধরণের মাদক বিরোধী অভিযান সচল রেখে মাদকমুক্ত সোনার বাংলা গঠনে র‌্যাব-১২ বদ্ধপরিকর। র‌্যাব-১২ কে তথ্য দিন – মাদক , অস্ত্রধারী ও জঙ্গিমুক্ত বাংলাদেশ গঠনে অংশ নিন।

তাড়াশে প্রেমিকের বাড়িতে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকার অনশন

লুৎফর রহমান, তাড়াশ প্রতিনিধিঃ সিরাজগঞ্জের তাড়াশে স্ত্রীর স্বীকৃতি চেয়ে প্রেমিকের বাড়িতে ৩ দিন ধরে অনশন করছে প্রেমিকা সাবানা খাতুন। ঘটনাটি ঘটেছে তাড়াশ পৌর এলাকার খুটিগাছা গ্রামে। সরেজমিন ও এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, তাড়াশ পৌর এলাকার […]